ইতিহাস গড়তে এসে অঘটনের শিকার ‘জোকার’

অনলাইন ডেস্ক | আপডেট:

ডেনিস ইস্তোমিন, এক জয় দিয়েই আলোচনায়! ছবি: এএফপিধাক্কাটি সামলাতে একটু সময় নিতেই হচ্ছে। অস্ট্রেলিয়ান ওপেনের তৃতীয় রাউন্ডের খেলা হবে আর তাতে থাকবেন না নোভাক জোকোভিচ! অভাবনীয় সে ঘটনাই ঘটে গেল আজ। টানা সাতটি শিরোপা জিতে যেখানে ইতিহাস গড়তে এসেছিলেন, সেখানে তাঁকে বিদায় নিতে হলো দ্বিতীয় রাউন্ড থেকেই। র‍্যাঙ্কিংয়ের ১১৭ নম্বর খেলোয়াড় ডেনিস ইস্তোমিনের কাছে ৭-৬ (১০ /৮),৫-৭, ২-৬,৭-৬ (৭ /৫),৬-৪ হেরে গেছেন বিশ্বের ২ নম্বর টেনিস তারকা।

ডেনিস ইস্তোমিন। নামটা খুব পরিচিত নয় টেনিস দুনিয়ায়। ৩০ বছর বয়সী উজবেকিস্তানের এই টেনিস খেলোয়াড় পেশাদারি টেনিসে শিরোপাই জিতেছেন মাত্র একবার। আর গ্র্যান্ডস্লামে সাফল্য? ইউএস ওপেন ও উইম্বলডনে একবার চতুর্থ রাউন্ডে পা দিয়েছিলেন, এ ছাড়া অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে দুবার তৃতীয় রাউন্ডে খেলেছিলেন তিনি। ২০১০ ও ২০১৪ সালের সে দুটো ম্যাচে ইস্তোমিন হেরেছিলেন এই জোকোভিচের কাছেই।

এবার তৃতীয় নয় দ্বিতীয় রাউন্ডেই দেখা হয়ে গেল দুজনের। এর আগে এই দুজন পাঁচবার মুখোমুখি হয়েছিলেন। একটা সেটও জিততে পারেননি ইস্তোমিন। ২০১৪ সালে শেষ সেটে ৫টি গেম জেতাই ছিল তাঁর সেরা সাফল্য। আজ সেই গল্প যে বদলে যাচ্ছে সেটি জানিয়ে দিলেন প্রথম সেটেই। টাইব্রেকে জিতে গেলেন প্রথম সেট। তবে জোকোভিচ ঘুরে দাঁড়িয়েছিলেন পরের দুই সেটে। কিন্তু চতুর্থ সেটেই আবার ইস্তোমিনের চমক। আবারও টাইব্রেকে জয় ইস্তোমিনের।
শেষ সেটেও গল্পটা পাল্টাল না। দুর্দান্ত গতির সার্ভ ও জোকোভিচের একের পর এক ফল্টের সুযোগ নিয়ে ৬-৪ গেমে শেষ সেট জিতে গেলেন ইস্তোমিন। ৪ ঘণ্টা ৪৮ মিনিটের এই লড়াইয়ে হেরে গেলেন ছয় বারের চ্যাম্পিয়ন জোকোভিচ। রয় এমারসনকে পেছনে ফেলার স্বপ্নটা তাই অন্তত আরও এক বছর পিছিয়ে দিতে হচ্ছে ১২টি গ্র্যান্ড স্লাম জয়ী সার্বিয়ানকে। ২০০৮ সালের উইম্বলডনের পর এই প্রথম কোনো গ্র্যান্ড স্লামের দ্বিতীয় রাউন্ড থেকে বিদায় নিলেন। প্রিয় টুর্নামেন্ট অস্ট্রেলিয়ান ওপেনে তো ২০০৬ সালে প্রথম রাউন্ড থেকে বিদায় নেওয়া পর চতুর্থ রাউন্ডের আগে কখনোই ফেরেননি ‘জোকার’।

 

পাঠকের মন্তব্য

 

ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

আপনি কি পরিচয় গোপন রাখতে চান
আমি প্রথম আলোর নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
View Mobile Site
   
সম্পাদক ও প্রকাশক: মতিউর রহমান
সিএ ভবন, ১০০ কাজী নজরুল ইসলাম অ্যাভিনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা-১২১৫
ফোন: ৮১৮০০৭৮-৮১, ফ্যাক্স: ৯১৩০৪৯৬, ই-মেইল: info@prothom-alo.info
 
topউপরে