সব

সিলেট ও চট্টগ্রামে হাইকোর্টের সার্কিট বেঞ্চ স্থাপন করা হবে: প্রধান বিচারপতি

নিজস্ব প্রতিবেদক, সিলেট

সিলেট ও চট্টগ্রামে হাইকোর্টের সার্কিট বেঞ্চ স্থাপনের বিষয়টি সক্রিয় বিবেচনায় রয়েছে বলে জানিয়েছেন প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা। গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে সিলেট জেলা আইনজীবী সমিতির বার্ষিক নৈশভোজ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা জানান।

প্রধান বিচারপতি বলেন, উচ্চ আদালতের বিচারিক সেবাকে সাধারণ মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়ার লক্ষ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা হাইকোর্টের সার্কিট বেঞ্চ স্থাপনের বিষয়ে আগ্রহ প্রকাশ করেছেন। এমনকি বিরোধীদলীয় নেত্রী রওশন এরশাদও এ বিষয়ে ব্যক্তিগতভাবে অনুরোধ করেছেন। নতুন বিচারক নিয়োগ ও প্রয়োজনীয় প্রশিক্ষণ শেষে এ বিষয়ে সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

আইনজীবীদের বিচার বিভাগের একটি অঙ্গ অভিহিত করে সুরেন্দ্র কুমার সিনহা নবীন আইনজীবীদের উদ্দেশে বলেন, ‘আইনজীবীরা বিচার বিভাগের একটি অঙ্গ। তাঁরাই নির্যাতিত মানুষের অধিকার নিশ্চিত করেন। একজন আইনজীবীর সামান্য ত্রুটির কারণে বিচারপ্রার্থীর অনেক বড় ক্ষতি হতে পারে। আবার তাঁর যথাযথ সচেতনতায় ন্যায়বিচার প্রতিষ্ঠিত হতে পারে। তাই আইন পেশাকে নিছক পেশা হিসেবে গ্রহণ না করে সেবা হিসেবে গ্রহণ করতে হবে।’

প্রধান বিচারপতি সিলেট বারে আইনজীবী হিসেবে তাঁর কর্মজীবন শুরুর স্মৃতিচারণা করে বলেন, স্বাধীনতা-উত্তরকালে সিলেট বারে যেসব আইনজীবী কাজ করতেন, তাঁরা ছিলেন প্রবাদপ্রতিম সততার অধিকারী। তাঁরা কখনোই সিলেট বারের আইন অঙ্গনে রাজনীতির চর্চা করতেন না। সিলেটের আইনজীবীদের অতীতের মতো সিলেট বারকে রাজনীতির ঊর্ধ্বে রাখতে সবাইকে সচেষ্ট থাকার আহ্বান জানান তিনি।

সিলেটের জজ আদালত চত্বরে আয়োজিত বার্ষিক নৈশভোজ অনুষ্ঠানে জেলা আইনজীবী সমিতির নবীন আইনজীবীদের বরণ, আইনজীবীদের মেধাবী সন্তানদের মধ্যে পুরস্কার বিতরণ, অভ্যন্তরীণ ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ ও সিলেট বারে ২৫ বছরের বেশি সময় ধরে কর্মরত ২৭৪ জন আইনজীবীকে সম্মাননা স্মারক দেওয়া হয়।

জেলা আইনজীবী সমিতির সভাপতি এ কে এম শমিউল আলমের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য দেন জেলা ও দায়রা জজ মনির আহমদ পাটোয়ারি, সিলেটের সরকারি কৌঁসুলি (পিপি) মিসবাহ উদ্দিন সিরাজ ও জিপি খাদিমুল মিল্লাহ মোহাম্মদ জালাল। আইনজীবী সমিতির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জুবায়ের বখতের সঞ্চালনায় বার্ষিক প্রতিবেদন উপস্থাপন করেন সাধারণ সম্পাদক শাহ আশরাফুল ইসলাম।

default image

শহীদের বিরুদ্ধে মৃত্যু পরোয়ানা জারি

default image

‘কাঁচা ধান কাটিয়া লাভ নাই, চেষ্টাও করি নাই’

default image

বিচারকের সংকটে বছরের পর বছর মামলা ঝুলে আছে

default image

বিচারপতি নিয়োগে আইন হচ্ছে

মন্তব্য ( ১ )

আপনার পরিচয় গোপন রাখতে
আমি নীতিমালা মেনে মন্তব্য করছি।
Show
1 2 3 4
 
আরও মন্তব্য

ইহাতে মন্তব্য প্রদান বন্ধ রয়েছে

default image

একরাম হত্যা মামলা জ্যেষ্ঠ বিচারিক হাকিম ও চারজন পুলিশ কর্মকর্তার সাক্ষ্য

ফেনীর ফুলগাজী উপজেলা চেয়ারম্যান একরামুল হক হত্যা মামলায় গতকাল রোববার আদালতে...
বাধ্য হয়ে কথা বলতে হচ্ছে: প্রধান বিচারপতি

বাধ্য হয়ে কথা বলতে হচ্ছে: প্রধান বিচারপতি

প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা বলেছেন, পাকিস্তানের মতো দেশে এখন...
সাংসদ হত্যায় অভিযোগপত্র, কাদের খানই মূল আসামি

সাংসদ হত্যায় অভিযোগপত্র, কাদের খানই মূল আসামি

সাংসদ মনজুরুল ইসলাম লিটন হত্যা মামলায় অবসরপ্রাপ্ত সেনা কর্মকর্তা আবদুল কাদের...
টিটোর বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

‘মা’ ডেকে ঘনিষ্ঠতা, পরে বাসায় নিয়ে ধর্ষণ টিটোর বিরুদ্ধে গ্রেপ্তারি পরোয়ানা

‘মা’ ডেকে ঘনিষ্ঠ হওয়ার পর বাসায় নিয়ে ধর্ষণ করার অভিযোগে এনামুল হক...
পুরোনো পথে হাঁটতে চায় না বিএনপি

পুরোনো পথে হাঁটতে চায় না বিএনপি

এবার নির্বাচন প্রতিরোধের বদলে জাতীয় নির্বাচনে অংশ নেওয়ার চিন্তা করছে বিএনপি।...
সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ কর্মক্ষেত্র পরিবহন খাত

সবচেয়ে ঝুঁকিপূর্ণ কর্মক্ষেত্র পরিবহন খাত

দেশে কর্মক্ষেত্রে দুর্ঘটনায় মৃত্যু গত এক দশকে ক্রমাগত বেড়েছে। এর মধ্যে বরাবর...
বাবা–মেয়ের আত্মহত্যার দায় কার?

বাবা–মেয়ের আত্মহত্যার দায় কার?

মাত্র এক দিন বয়সে আয়েশা আক্তারকে নিজেদের কাছে নিয়ে এসেছিলেন নিঃসন্তান দম্পতি...
default image

মহান মে দিবস আজ

সারা বিশ্বের শ্রমজীবী মানুষের অধিকার প্রতিষ্ঠায় আজ পালিত হচ্ছে মহান মে দিবস।...
মোবাইল অ্যাপস ডাউনলোড করুন    
© স্বত্ব প্রথম আলো ১৯৯৮ - ২০১৭
সম্পাদক ও প্রকাশক: মতিউর রহমান
সিএ ভবন, ১০০ কাজী নজরুল ইসলাম অ্যাভেনিউ, কারওয়ান বাজার, ঢাকা ১২১৫
ফোন: ৮১৮০০৭৮-৮১, ফ্যাক্স: ৯১৩০৪৯৬, ইমেইল: info@prothom-alo.info